স্বাধীনতায় উচ্ছল প্রাণে
সোনালী চিলের ডানা ছিল
মুক্ত কন্ঠে মধু-গান ছিল
সৌরভ মাখানো হাত ছিল
পদোযুগল সজীব ছিল
চোখের তারায় রঙ ছিল
প্রাণে প্রাণগত মিল ছিল
মনের ভিতরে সঙ ছিল
কতো যে মধুর মালা গাঁথা
আহা ! আজ আমি বন্দি স্বাধীনতা ।


সমনের ফাঁদে কন্ঠ বাঁধা
জুলুম সহে ফুঁপিয়ে কাঁদা
গুমে-স্বজন নির্বাক ত্রাসে
কারাগারগুলো অট্টহাসে
বায়ো চোখগুলো ভীতি-বন্দি
ডিজিটাল চোখে অভিসন্ধি
কালি কলম জমাট বেঁধেছে
সুশীল মগজে ক্ষয় ধরেছে
কুটিল আঘাতে শুধু নিরবতা
আহা ! আজ ‍আমি বন্দি স্বাধীনতা ।


আইনী বস্ত্র ডাকাতে পরা
কোষকুঞ্চিকা লুটেরায় ধরা
বিচারাসনে সুবিধা হাসে
শাসনদন্ড দুর্বৃত্তকে পোষে
খবর-মুখে দিয়েছে তালা
অন্তরালে লুকোচুরি খেলা
গাত্র বাঁচানো যে যার চলা
বায়না বেতালে ছলাকলা
কারো মাথায় নেইকো ব্যথা
আহা ! আজ আমি বন্দি স্বাধীনতা ।


ফিরোজ, সিদ্ধেশ্বরী, ০১/০৩/২০১৭