ওরে মন,
তোর ভ্রমে আজ হলো আমার এ কি সর্বনাশ
আলো-কে তুই ভাবলি আঁধার,
আলো ভেবে আঁধার মাঝে করলি বসবাস।
ওরে মন, না বুঝে তুই করলি শুধু নিজের সর্বনাশ।


সবার ভিক্ষে নিয়ে নিয়ে নিজকে ভাবিস ধনী
কয়লা যত বুকে ধরিস, ছুড়ে ফেলিস মনি
ভোগে ভোগে বাড়লো রে লোভ
মরার আগেও কমলো না ক্ষোভ
তোর সকল ভ্রমই ঘুঁচবে রে মন  
হঠাৎ যেদিন শেষ হবে তোর শ্বাস
ওরে মন, না বুঝে তুই করলি শুধু নিজের সর্বনাশ।


ওরে মন, জন্ম নিলি মানুষ হয়ে
বাঁচলি কই আর মানুষ রয়ে?
ধর্ম-জাতের বর্ম গায়ে
মানুষকে তুই ঠেললি পায়ে
নিজকে মিছেই ভাবলি সেরা,
এবার সত্যিপথে দৃষ্টি ফেরা
এই মানুষের সেবা ছাড়া জীবন রবে ধর্মহারা
সকল ধর্মের মানুষেরা সেই একই প্রভুর দাস
ওরে মন, না বুঝে তুই করলি শুধু নিজের সর্বনাশ।